মিলবে ক্ষতিপূরণ কলড্রপ হলে


প্রতিবার ফোনে কথা বলার সময় কলড্রপ হলেই মোবাইল ফোনের গ্রাহকেরা ক্ষতিপূরণ হিসেবে ১ মিনিট ফেরত পাবেন বলে জানিয়েছেন ডাক ও টেলিযোগাযোগ প্রতিমন্ত্রী তারানা হালিম। শুক্রবার সামাজিক সাইট ফেসবুকে নিজের পেজে পোস্ট করে এ তথ্য জানিয়েছেন তিনি।

পোস্টে তিনি জানিয়েছেন, ‘মোবাইল ফোনের গ্রাহকেরা এখন থেকে প্রতি কলড্রপে এক (০১) মিনিট করে ক্ষতিপূরণ পাবেন। গ্রাহক সন্তুষ্টি ডাক ও টেলিযোগাযোগ বিভাগের প্রধান লক্ষ্য।’

ওই পোস্টে তারানা হালিম আরও জানিয়েছেন, আমি সকল অপারেটরদের সিইও দের বৈঠক করেছিলাম আপনারা সবাই জানেন। তাদেরকে সময় বেঁধে দিয়েছিলাম তাদের নেটওয়ার্কের মান এবং গ্রাহক সেবার মান উন্নয়ন করার। পাশাপাশি আমাদের টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণ কমিশনকে (বিটিআরসি) বলেছিলাম কল ড্রপ নিয়ে কার্যকরি সিদ্ধান্তে পৌঁছাতে। এই সকল কার্যক্রমের সমন্বয়েই আজকের এই সিদ্ধান্ত নেয়া হলো। গ্রাহক সেবা এবং সন্তুষ্টিই আমাদের ডাক ও টেলিযোগাযোগ বিভাগের প্রধান উদ্দেশ্য। সকলকে পাশে থাকার জন্য ধন্যবাদ।’

বর্তমানে তিনিমালয়েশিয়া ও সিংগাপুরে সফররত আছেন তারানা হালিম। গত ৬ জানুয়ারি সরকারের দুই বছর পূর্তি উপলক্ষে ডাক ও টেলিযোগাযোগ বিভাগের এক সংবাদ সম্মেলনে তারানা হালিম জানিয়েছিলেন, চলতি বছরের মধ্যে কলড্রপের জন্য গ্রাহকদের ক্ষতিপূরণ বাস্তবায়িত হবে।

এর আগে গত বছরের অগাস্টে মোবাইল ফোন অপারেটরদের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তাদের সঙ্গে এক বৈঠকে দ্রুত কলড্রপ সমস্যার সমাধান করতে অপারেটরদের নির্দেশনা দেন তারানা। এ সময় তিনি বিটিআরসিকে কলড্রপ সমস্যার সমাধান না হলে গ্রাহকদের ক্ষতিপূরণ পাওয়ার বিষয়ে সিদ্ধান্ত নিতে বলেন।

প্রসঙ্গত, ২০১৪ সালে গ্রামীণফোনসহ তিনটি অপারেটর কলড্রপে ক্ষতিপূরণের সুবিধা চালু করলেও পরে তা বন্ধ কর দেয়। এ বিষয়ে অপারেটররা বলেছিল এটা পরীক্ষামূলক প্রচারণা ছিল। বর্তমানে দেশে ৬ অপারেটরের ১৩ কোটি ৪০ লাখের মতো সিম চালু আছে।

প্রতিবার ফোনে কথা বলার সময় কলড্রপ হলেই মোবাইল ফোনের গ্রাহকেরা ক্ষতিপূরণ হিসেবে ১ মিনিট ফেরত পাবেন বলে জানিয়েছেন ডাক ও টেলিযোগাযোগ প্রতিমন্ত্রী তারানা হালিম। শুক্রবার সামাজিক সাইট ফেসবুকে নিজের পেজে পোস্ট করে এ তথ্য জানিয়েছেন তিনি।
tarana-halim-corporateপোস্টে তিনি জানিয়েছেন, ‘মোবাইল ফোনের গ্রাহকেরা এখন থেকে প্রতি কলড্রপে এক (০১) মিনিট করে ক্ষতিপূরণ পাবেন। গ্রাহক সন্তুষ্টি ডাক ও টেলিযোগাযোগ বিভাগের প্রধান লক্ষ্য।’
ওই পোস্টে তারানা হালিম আরও জানিয়েছেন, আমি সকল অপারেটরদের সিইও দের বৈঠক করেছিলাম আপনারা সবাই জানেন। তাদেরকে সময় বেঁধে দিয়েছিলাম তাদের নেটওয়ার্কের মান এবং গ্রাহক সেবার মান উন্নয়ন করার। পাশাপাশি আমাদের টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণ কমিশনকে (বিটিআরসি) বলেছিলাম কল ড্রপ নিয়ে কার্যকরি সিদ্ধান্তে পৌঁছাতে। এই সকল কার্যক্রমের সমন্বয়েই আজকের এই সিদ্ধান্ত নেয়া হলো। গ্রাহক সেবা এবং সন্তুষ্টিই আমাদের ডাক ও টেলিযোগাযোগ বিভাগের প্রধান উদ্দেশ্য। সকলকে পাশে থাকার জন্য ধন্যবাদ।’
বর্তমানে তিনিমালয়েশিয়া ও সিংগাপুরে সফররত আছেন তারানা হালিম। গত ৬ জানুয়ারি সরকারের দুই বছর পূর্তি উপলক্ষে ডাক ও টেলিযোগাযোগ বিভাগের এক সংবাদ সম্মেলনে তারানা হালিম জানিয়েছিলেন, চলতি বছরের মধ্যে কলড্রপের জন্য গ্রাহকদের ক্ষতিপূরণ বাস্তবায়িত হবে।
এর আগে গত বছরের অগাস্টে মোবাইল ফোন অপারেটরদের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তাদের সঙ্গে এক বৈঠকে দ্রুত কলড্রপ সমস্যার সমাধান করতে অপারেটরদের নির্দেশনা দেন তারানা। এ সময় তিনি বিটিআরসিকে কলড্রপ সমস্যার সমাধান না হলে গ্রাহকদের ক্ষতিপূরণ পাওয়ার বিষয়ে সিদ্ধান্ত নিতে বলেন।
প্রসঙ্গত, ২০১৪ সালে গ্রামীণফোনসহ তিনটি অপারেটর কলড্রপে ক্ষতিপূরণের সুবিধা চালু করলেও পরে তা বন্ধ কর দেয়। এ বিষয়ে অপারেটররা বলেছিল এটা পরীক্ষামূলক প্রচারণা ছিল। বর্তমানে দেশে ৬ অপারেটরের ১৩ কোটি ৪০ লাখের মতো সিম চালু আছে।
- See more at: http://corporatenews.com.bd/%e0%a6%95%e0%a6%b2%e0%a6%a1%e0%a7%8d%e0%a6%b0%e0%a6%aa-%e0%a6%b9%e0%a6%b2%e0%a7%87-%e0%a6%ae%e0%a6%bf%e0%a6%b2%e0%a6%ac%e0%a7%87-%e0%a6%95%e0%a7%8d%e0%a6%b7%e0%a6%a4%e0%a6%bf%e0%a6%aa%e0%a7%82.html#sthash.RW4JM38J.dpuf
প্রতিবার ফোনে কথা বলার সময় কলড্রপ হলেই মোবাইল ফোনের গ্রাহকেরা ক্ষতিপূরণ হিসেবে ১ মিনিট ফেরত পাবেন বলে জানিয়েছেন ডাক ও টেলিযোগাযোগ প্রতিমন্ত্রী তারানা হালিম। শুক্রবার সামাজিক সাইট ফেসবুকে নিজের পেজে পোস্ট করে এ তথ্য জানিয়েছেন তিনি।
tarana-halim-corporateপোস্টে তিনি জানিয়েছেন, ‘মোবাইল ফোনের গ্রাহকেরা এখন থেকে প্রতি কলড্রপে এক (০১) মিনিট করে ক্ষতিপূরণ পাবেন। গ্রাহক সন্তুষ্টি ডাক ও টেলিযোগাযোগ বিভাগের প্রধান লক্ষ্য।’
ওই পোস্টে তারানা হালিম আরও জানিয়েছেন, আমি সকল অপারেটরদের সিইও দের বৈঠক করেছিলাম আপনারা সবাই জানেন। তাদেরকে সময় বেঁধে দিয়েছিলাম তাদের নেটওয়ার্কের মান এবং গ্রাহক সেবার মান উন্নয়ন করার। পাশাপাশি আমাদের টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণ কমিশনকে (বিটিআরসি) বলেছিলাম কল ড্রপ নিয়ে কার্যকরি সিদ্ধান্তে পৌঁছাতে। এই সকল কার্যক্রমের সমন্বয়েই আজকের এই সিদ্ধান্ত নেয়া হলো। গ্রাহক সেবা এবং সন্তুষ্টিই আমাদের ডাক ও টেলিযোগাযোগ বিভাগের প্রধান উদ্দেশ্য। সকলকে পাশে থাকার জন্য ধন্যবাদ।’
বর্তমানে তিনিমালয়েশিয়া ও সিংগাপুরে সফররত আছেন তারানা হালিম। গত ৬ জানুয়ারি সরকারের দুই বছর পূর্তি উপলক্ষে ডাক ও টেলিযোগাযোগ বিভাগের এক সংবাদ সম্মেলনে তারানা হালিম জানিয়েছিলেন, চলতি বছরের মধ্যে কলড্রপের জন্য গ্রাহকদের ক্ষতিপূরণ বাস্তবায়িত হবে।
এর আগে গত বছরের অগাস্টে মোবাইল ফোন অপারেটরদের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তাদের সঙ্গে এক বৈঠকে দ্রুত কলড্রপ সমস্যার সমাধান করতে অপারেটরদের নির্দেশনা দেন তারানা। এ সময় তিনি বিটিআরসিকে কলড্রপ সমস্যার সমাধান না হলে গ্রাহকদের ক্ষতিপূরণ পাওয়ার বিষয়ে সিদ্ধান্ত নিতে বলেন।
প্রসঙ্গত, ২০১৪ সালে গ্রামীণফোনসহ তিনটি অপারেটর কলড্রপে ক্ষতিপূরণের সুবিধা চালু করলেও পরে তা বন্ধ কর দেয়। এ বিষয়ে অপারেটররা বলেছিল এটা পরীক্ষামূলক প্রচারণা ছিল। বর্তমানে দেশে ৬ অপারেটরের ১৩ কোটি ৪০ লাখের মতো সিম চালু আছে।
- See more at: http://corporatenews.com.bd/%e0%a6%95%e0%a6%b2%e0%a6%a1%e0%a7%8d%e0%a6%b0%e0%a6%aa-%e0%a6%b9%e0%a6%b2%e0%a7%87-%e0%a6%ae%e0%a6%bf%e0%a6%b2%e0%a6%ac%e0%a7%87-%e0%a6%95%e0%a7%8d%e0%a6%b7%e0%a6%a4%e0%a6%bf%e0%a6%aa%e0%a7%82.html#sthash.RW4JM38J.dpuf
প্রতিবার ফোনে কথা বলার সময় কলড্রপ হলেই মোবাইল ফোনের গ্রাহকেরা ক্ষতিপূরণ হিসেবে ১ মিনিট ফেরত পাবেন বলে জানিয়েছেন ডাক ও টেলিযোগাযোগ প্রতিমন্ত্রী তারানা হালিম। শুক্রবার সামাজিক সাইট ফেসবুকে নিজের পেজে পোস্ট করে এ তথ্য জানিয়েছেন তিনি।
tarana-halim-corporateপোস্টে তিনি জানিয়েছেন, ‘মোবাইল ফোনের গ্রাহকেরা এখন থেকে প্রতি কলড্রপে এক (০১) মিনিট করে ক্ষতিপূরণ পাবেন। গ্রাহক সন্তুষ্টি ডাক ও টেলিযোগাযোগ বিভাগের প্রধান লক্ষ্য।’
ওই পোস্টে তারানা হালিম আরও জানিয়েছেন, আমি সকল অপারেটরদের সিইও দের বৈঠক করেছিলাম আপনারা সবাই জানেন। তাদেরকে সময় বেঁধে দিয়েছিলাম তাদের নেটওয়ার্কের মান এবং গ্রাহক সেবার মান উন্নয়ন করার। পাশাপাশি আমাদের টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণ কমিশনকে (বিটিআরসি) বলেছিলাম কল ড্রপ নিয়ে কার্যকরি সিদ্ধান্তে পৌঁছাতে। এই সকল কার্যক্রমের সমন্বয়েই আজকের এই সিদ্ধান্ত নেয়া হলো। গ্রাহক সেবা এবং সন্তুষ্টিই আমাদের ডাক ও টেলিযোগাযোগ বিভাগের প্রধান উদ্দেশ্য। সকলকে পাশে থাকার জন্য ধন্যবাদ।’
বর্তমানে তিনিমালয়েশিয়া ও সিংগাপুরে সফররত আছেন তারানা হালিম। গত ৬ জানুয়ারি সরকারের দুই বছর পূর্তি উপলক্ষে ডাক ও টেলিযোগাযোগ বিভাগের এক সংবাদ সম্মেলনে তারানা হালিম জানিয়েছিলেন, চলতি বছরের মধ্যে কলড্রপের জন্য গ্রাহকদের ক্ষতিপূরণ বাস্তবায়িত হবে।
এর আগে গত বছরের অগাস্টে মোবাইল ফোন অপারেটরদের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তাদের সঙ্গে এক বৈঠকে দ্রুত কলড্রপ সমস্যার সমাধান করতে অপারেটরদের নির্দেশনা দেন তারানা। এ সময় তিনি বিটিআরসিকে কলড্রপ সমস্যার সমাধান না হলে গ্রাহকদের ক্ষতিপূরণ পাওয়ার বিষয়ে সিদ্ধান্ত নিতে বলেন।
প্রসঙ্গত, ২০১৪ সালে গ্রামীণফোনসহ তিনটি অপারেটর কলড্রপে ক্ষতিপূরণের সুবিধা চালু করলেও পরে তা বন্ধ কর দেয়। এ বিষয়ে অপারেটররা বলেছিল এটা পরীক্ষামূলক প্রচারণা ছিল। বর্তমানে দেশে ৬ অপারেটরের ১৩ কোটি ৪০ লাখের মতো সিম চালু আছে।
- See more at: http://corporatenews.com.bd/%e0%a6%95%e0%a6%b2%e0%a6%a1%e0%a7%8d%e0%a6%b0%e0%a6%aa-%e0%a6%b9%e0%a6%b2%e0%a7%87-%e0%a6%ae%e0%a6%bf%e0%a6%b2%e0%a6%ac%e0%a7%87-%e0%a6%95%e0%a7%8d%e0%a6%b7%e0%a6%a4%e0%a6%bf%e0%a6%aa%e0%a7%82.html#sthash.RW4JM38J.dpuf
প্রতিবার ফোনে কথা বলার সময় কলড্রপ হলেই মোবাইল ফোনের গ্রাহকেরা ক্ষতিপূরণ হিসেবে ১ মিনিট ফেরত পাবেন বলে জানিয়েছেন ডাক ও টেলিযোগাযোগ প্রতিমন্ত্রী তারানা হালিম। শুক্রবার সামাজিক সাইট ফেসবুকে নিজের পেজে পোস্ট করে এ তথ্য জানিয়েছেন তিনি।
tarana-halim-corporateপোস্টে তিনি জানিয়েছেন, ‘মোবাইল ফোনের গ্রাহকেরা এখন থেকে প্রতি কলড্রপে এক (০১) মিনিট করে ক্ষতিপূরণ পাবেন। গ্রাহক সন্তুষ্টি ডাক ও টেলিযোগাযোগ বিভাগের প্রধান লক্ষ্য।’
ওই পোস্টে তারানা হালিম আরও জানিয়েছেন, আমি সকল অপারেটরদের সিইও দের বৈঠক করেছিলাম আপনারা সবাই জানেন। তাদেরকে সময় বেঁধে দিয়েছিলাম তাদের নেটওয়ার্কের মান এবং গ্রাহক সেবার মান উন্নয়ন করার। পাশাপাশি আমাদের টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণ কমিশনকে (বিটিআরসি) বলেছিলাম কল ড্রপ নিয়ে কার্যকরি সিদ্ধান্তে পৌঁছাতে। এই সকল কার্যক্রমের সমন্বয়েই আজকের এই সিদ্ধান্ত নেয়া হলো। গ্রাহক সেবা এবং সন্তুষ্টিই আমাদের ডাক ও টেলিযোগাযোগ বিভাগের প্রধান উদ্দেশ্য। সকলকে পাশে থাকার জন্য ধন্যবাদ।’
বর্তমানে তিনিমালয়েশিয়া ও সিংগাপুরে সফররত আছেন তারানা হালিম। গত ৬ জানুয়ারি সরকারের দুই বছর পূর্তি উপলক্ষে ডাক ও টেলিযোগাযোগ বিভাগের এক সংবাদ সম্মেলনে তারানা হালিম জানিয়েছিলেন, চলতি বছরের মধ্যে কলড্রপের জন্য গ্রাহকদের ক্ষতিপূরণ বাস্তবায়িত হবে।
এর আগে গত বছরের অগাস্টে মোবাইল ফোন অপারেটরদের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তাদের সঙ্গে এক বৈঠকে দ্রুত কলড্রপ সমস্যার সমাধান করতে অপারেটরদের নির্দেশনা দেন তারানা। এ সময় তিনি বিটিআরসিকে কলড্রপ সমস্যার সমাধান না হলে গ্রাহকদের ক্ষতিপূরণ পাওয়ার বিষয়ে সিদ্ধান্ত নিতে বলেন।
প্রসঙ্গত, ২০১৪ সালে গ্রামীণফোনসহ তিনটি অপারেটর কলড্রপে ক্ষতিপূরণের সুবিধা চালু করলেও পরে তা বন্ধ কর দেয়। এ বিষয়ে অপারেটররা বলেছিল এটা পরীক্ষামূলক প্রচারণা ছিল। বর্তমানে দেশে ৬ অপারেটরের ১৩ কোটি ৪০ লাখের মতো সিম চালু আছে।
- See more at: http://corporatenews.com.bd/%e0%a6%95%e0%a6%b2%e0%a6%a1%e0%a7%8d%e0%a6%b0%e0%a6%aa-%e0%a6%b9%e0%a6%b2%e0%a7%87-%e0%a6%ae%e0%a6%bf%e0%a6%b2%e0%a6%ac%e0%a7%87-%e0%a6%95%e0%a7%8d%e0%a6%b7%e0%a6%a4%e0%a6%bf%e0%a6%aa%e0%a7%82.html#sthash.RW4JM38J.dpuf