এশিয়া কাপ এবং বাংলাদেশ, স্মৃতি, ক্যাপ্টেন মাশরাফি, ম্যাচ শিডিউল, থিম সং, ওয়াল পেপার, লাইভ স্ট্রিমিং

  ফেব্রুয়ারি ২৪: বাংলাদেশ - ভারত     ফেব্রুয়ারি ২৫: শ্রীলঙ্কা - বাছাই পর্ব পেরিয়ে আসা দল     ফেব্রুয়ারি ২৬: বাংলাদেশ - বাছাই পর্ব পেরিয়ে আসা দল     ফেব্রুয়ারি ২৭: ভারত – পাকিস্তান     ফেব্রুয়ারি ২৮: বাংলাদেশ – শ্রীলঙ্কা     ফেব্রুয়ারি ২৯ : পাকিস্তান – বাছাই পর্ব পেরিয়ে আসা দল     মার্চ ১: ভারত – শ্রীলঙ্কা     মার্চ ২: বাংলাদেশ – পাকিস্তান     মার্চ ৩: ভারত – বাছাই পর্ব পেরিয়ে আসা দল     মার্চ ৪: পাকিস্তান – শ্রীলঙ্কা     মার্চ ৬: ফাইনালআর মাত্র দুটি দিন তারপর বাংলাদেশ বনাম ভারতের ম্যাচের মধ্য দিয়ে উপমহাদেশের বিশ্বকাপ খ্যাত ‘এশিয়া কাপ ক্রিকেট ২০১৬’ এর মূল আসরের পর্দা উঠছে। গ্যালারির টিকিট ইতিমধ্যেই শেষ। এশিয়া কাপের প্রথম ম্যাচে মুখোমুখি হবে বাংলাদেশ ও ভারত। ফাইনালসহ টুর্নামেন্টের সব ম্যাচই হবে মিরপুর শের-ই-বাংলা স্টেডিয়ামে। টুর্নামেন্ট শুরু ও ফাইনালের তারিখ বেশ কিছু দিন আগেই ঠিক হয়ে গেলেও আনুষ্ঠানিকভাবে তা প্রকাশ করা হয় বুধবার। ২৭ ফেব্রুয়ারি মুখোমুখি হবে চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী ভারত ও পাকিস্তান। অংশ নেবে আফগানিস্তান, সংযুক্ত আরব আমিরাত, ওমান ও হংকং ।







এশিয়া কাপ ২০১৬ এবং বাংলাদেশঃ

 ২০১২ এশিয়া কাপের স্মৃতি কি কখনো ভুলতে পারবে এ দেশের ক্রিকেট সমর্থকেরা এশিয়ার বিশ্বকাপই বলা চলে এশিয়া কাপকে । বাংলাদেশের জন্য এটি অবশ্য আরও বেশি প্রযোজ্য। বিশ্বকাপে অংশগ্রহণের আগে এশিয়া কাপের মধ্য দিয়েই বিশ্বের অন্যতম সেরা (ভারত, পাকিস্তান, শ্রীলঙ্কা) দলগুলোর প্রতিপক্ষ হওয়ার সুযোগ পেয়েছিল বাংলাদেশ। সে হিসেবে এটি বাংলাদেশের জন্য বিশ্বকাপের মতোই মর্যাদার একটি আসর। যে আসরের শিরোপা এখনো অধরা টাইগারদের কাছে। তবে ২০১২ আসরে ফাইনালে মাত্র ২ রানের জন্য হেরে যায় বাংলাদেশ। (তথ্যের কিছু অংশ উল্লেক্ষিত প্রতিবেদন থেকে নেওয়া এশিয়ার বিশ্বকাপ এশিয়া কাপ এবং বাংলাদেশ ।)




২০১২ এশিয়া কাপের স্মৃতিঃ

২০১২ এশিয়া কাপের স্মৃতি কি কখনো ভুলতে পারবে এ দেশের ক্রিকেট সমর্থকেরা। মাত্র ২ রানের জন্য ফাইনালে সেবার পাকিস্তানের কাছে হেরেছিল বাংলাদেশ। যে টুর্নামেন্টে ভারত-শ্রীলঙ্কাকে হারিয়ে ফাইনালে উঠেছিল তারা। এশিয়া কাপ বলতেই টাইগারভক্তদের মনে ভেসে আসে আবেগতাড়িত সে কান্নার স্মৃতি। (ভিডিও এখানে এশিয়া কাপ বলতেই টাইগারভক্তদের মনে আসে আবেগতাড়িত সে কান্নার স্মৃতি)

 

 

 

 

 

ক্যাপ্টেন মাশরাফির অন্য রকম এশিয়া কাপঃ

মাশরাফি বিন মুর্তজা।আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে পা রাখার পর ২০০৪ সালের এশিয়া কাপ টাই শুধু খেলতে পারেননি মাশরাফি বিন মুর্তজা। ২০০৮, ২০১০, ২০১২, ২০১৪—চারটি এশিয়া কাপের প্রতিটিতেই খেলেছেন তিনি। প্রতিটি টুর্নামেন্ট খেলেছেন দলের একজন সদস্য হিসেবেই। তবে এবারের এশিয়া কাপটা মাশরাফির কাছে হতে যাচ্ছে অন্য রকম। এই প্রথম তিনি এশিয়া কাপ (Asia Cup) এ বাংলাদেশের অধিনায়ক! তাই এবারের এশিয়া কাপ মাশরাফির অন্য রকম একটি এশিয়া কাপ







ম্যাচ শিডিউলঃ

এশিয়া কাপের ২০১৬ এর সূচি নিম্নে দেওয়া হল। (এশিয়া কাপ ২০১৬ এর সূচি)
  • ফেব্রুয়ারি ২৪: বাংলাদেশ - ভারত
  • ফেব্রুয়ারি ২৫: শ্রীলঙ্কা - বাছাই পর্ব পেরিয়ে আসা দল
  • ফেব্রুয়ারি ২৬: বাংলাদেশ - বাছাই পর্ব পেরিয়ে আসা দল
  • ফেব্রুয়ারি ২৭: ভারত – পাকিস্তান
  • ফেব্রুয়ারি ২৮: বাংলাদেশ – শ্রীলঙ্কা
  • ফেব্রুয়ারি ২৯ : পাকিস্তান – বাছাই পর্ব পেরিয়ে আসা দল
  • মার্চ ১: ভারত – শ্রীলঙ্কা
  • মার্চ ২: বাংলাদেশ – পাকিস্তান
  • মার্চ ৩: ভারত – বাছাই পর্ব পেরিয়ে আসা দল
  • মার্চ ৪: পাকিস্তান – শ্রীলঙ্কা
  • মার্চ ৬: ফাইনাল








এশিয়া কাপের থিম সং:

এশিয়া কাপের ২০১৬ এর এখন পর্যন্ত কোন অফিসিয়াল থিম সং হইনি। তবে আনঅফিসিয়াল কিছু এশিয়া কাপের থিম সং টিভি এবং ইউটিউব জুড়ে ঘুরে বেড়াচ্ছে। এশিয়া কাপের ২০১৬ এর থিম সংগুলো দেখতা পারেন এখানে
 

 

 

 

এশিয়া কাপের ওয়াল পেপারঃ

 



এশিয়া কাপের লাইভ স্ট্রিমিং:


Match Name
Broadcasting
  • বাংলাদেশ - ভারত

 
  • শ্রীলঙ্কা - বাছাই পর্ব পেরিয়ে আসা দল

  • বাংলাদেশ - বাছাই পর্ব পেরিয়ে আসা দল

  • ভারত – পাকিস্তান

 
  • বাংলাদেশ – শ্রীলঙ্কা

  • ভারত – শ্রীলঙ্কা

  • বাংলাদেশ – পাকিস্তান