বিশ্বের সবচেয়ে বিলাসবহুল ৫টি গাড়ি


পৃথিবীর সবচেয়ে দামী গাড়িগুলো আসলে প্রয়োজন বা শুধু বিলাসিতা কোনটার উদ্দেশ্যেই তৈরি নয়। এগুলো একেকটা আর্টপিস। প্রযুক্তির আত্যাধুনিক ব্যবহার গাড়িগুলোকে করেছে লোভনীয়, তা সে লোভ মেটানোর সাধ আপনার আমার থাক বা না থাক! এই গাড়িগুলো তো আসলে সবার জন্য তৈরি নয়। বিশেষ ক্রেতার বিশেষ চাহিদা মাথায় রেখেই তৈরি হয় একেকটি মাস্টার পিস।
১। Maybach Exelero ($8 million)
বর্ণনায় সব বলা যায়? অবর্ণনীয় দূর্দান্ত এই গাড়িটিতে লাগানো হয়েছে টুইন টার্বো V12 ইঞ্জিন। ফালদা রিইনফেনোয়েরকের জন্য ২০০৪ সালে বিশেষভাবে বানানো হয় গাড়িটি।
ফটোসোর্স:www.carscoops.comwww.carscoops.com
২। Lamborghini Veneno ($4.5 million)
এই লিমিটেড এডিশন ল্যাম্বরগিনি ভেনেনোর আছে মাত্র ৩ টি ইউনিট এবং এটি নিজের গতি ৩৫০ কিলোমিটার বাড়াতে পারে প্রতি ঘন্টায়।
ফটোসোর্স:www.autocarnewshq.com
৩। Lykan Hypersport ($3.4 million)
লাইকান হাইপারস্পোর্ট নকশা করা হয়েছিল ২০১২ সালে। নকশাটি করেন ডব্লিউ মটরস। গাড়িটি প্রতি ঘন্টায় ৩৮৫ গতিতে চলে, এর ইঞ্জিন টারবো ফ্লাট সিক্স ৩.৭ লিটার। এর হেডলাইটে শুধু বাড়তি একটি কাঠামো যোগ করতে বসানো হয়েছে টাইটানিয়াম লীড ব্লেড যাতে আছে ৪২০ টি হীরা।
ফটোসোর্স:www.motorsportnationals.com
৪। Bugatti Veyron Super Sports ($2.4 million)
বুগাত্তি ভেরন গিনেস বুক এ সবচেয়ে গতিশীল গাড়ি হিসেবে বিশ্ব রেকর্ড গড়েছে। দ্রততম এই গাড়িটি প্রতি ঘন্টায় ৪০৮.৪৭ কিলোমিটার বেগে চলতে পারে।
ফটোসোর্স:www.topcarrating.com
৫। Lamborghini Reventon ($2 million)
অন্যতম দামী গাড়ি যেটি তৈরিতে ব্যয় হয়েছে ২ মিলিয়ন ডলার। গাড়িটি লঞ্চ করা হয় ২০০৭ সালে ফ্রাঙ্কফুর্ট মোটর শো তে। গাড়িটিতে আছে TFT লিকুইড ক্রিস্টাল ডিসপ্লে এবং ২ টি ডাইভার্স ডিসপ্লে মোড। রিভেনটনে আরও আছে জি-ফোর্স মিটার এবং এর সর্বোচ্চ গতি ঘন্টা প্রতি ২২১ মিটার।