সাত দিনেই চাহিদার শীর্ষে হুয়াওয়ে জিআর ফাইভ


বাংলাদেশের বাজারে ছাড়ার মাত্র সাতদিনেই ২০০০ ইউনিট হুয়াওয়ে জিআর ফাইভ বিক্রি হয়েছে। এখন বাড়তি চাহিদা মেটাতে হিমশিম খেতে হচ্ছে হুয়াওয়ে কর্তৃপক্ষের। অতি শীঘ্রই বাড়তি চাহিদা মেটাতে নতুন ষ্টক আনছে হুয়াওয়ে।
হুয়াওয়ে টেকনলোজিস (বাংলাদেশ)-এর পণ্য পরিচালক, ইংমার ওয়্যাং বলেন, ‘ব্যাপক চাহিদার পরিপ্রেক্ষিতে আমরা বলতে পারি শীঘ্রই হুয়াওয়ে জিআর ফাইভ স্মার্টফোনটি বিশ্ববিদ্যালয় পড়–য়া তরুণদের মাঝে ফ্ল্যাগশীপ ফোন হিসেবে গ্রহণযোগ্যতা পাবে যারা কিনা স্বল্প বাজেটে আধুনিক ফিচারসমৃদ্ধ স্মার্টফোনের দিকে সবসময় নজর দিয়ে থাকে যা তাদের জীবনযাত্রার মানের সঙ্গে সমান্তরালভাবে মানিয়ে যায়।’
হুয়াওয়ে জিআর ৫ স্মার্টফোনটি জি সিরিজের সর্বাধুনিক স্মার্টফোন। স্মার্টফোনটিতে আছে দ্বিতীয় প্রজন্মের ৩৬০ ডিগ্রি কোণে টাচ সমর্থনযোগ্য ফিঙ্গারপ্রিন্ট প্রযুক্তি, অত্যাধুনিক ১৩ মেগাপিক্সেলের রিয়ার ও ৫ মেগাপিক্সেলের ফ্রন্ট ক্যামেরা, ৫.৫ ইঞ্চির উজ্জ্বল ডিসপ্লে এবং আকর্ষণীয় ও আধুনিক ডিজাইনসম্বলিত স্মার্টফোনটি সহজেই তরুণ প্রজন্মের দৃষ্টি আকর্ষণ করেছে। ফোনটিতে রয়েছে ৫.১ অ্যান্ড্রয়েড ললিপপ সিস্টেম, ২ জিবি র‌্যাম ও ১৬ জিবি অভ্যন্তরিন মেমোরি যা মাইক্রোএসডি কার্ডের মাধ্যমে ১২৮ গিগাবাইট পর্যন্ত বৃদ্ধি করা যাবে। দীর্ঘক্ষণ ব্যবহারের জন্য রাখা হয়েছে ৩০০০ মিলিঅ্যাম্পিয়ার ব্যাটারি। কোয়ালকম ¯œ্যাপড্রাগনের অক্টা-কোর প্রসেসরসমৃদ্ধ আকর্ষণীয় ফ্ল্যাগশীপ ফোন জিআর ফাইভ-এর মূল্য নির্ধারণ করা হয়েছে ২২,৯৯০ টাকা।
উল্লেখ্য, দেশের বৃহত্তম মোবাইল ফোন অপারেটর গ্রামীণফোনকে সঙ্গে নিয়ে নতুন মডেলের স্মার্টফোনটি উদ্বোধন করেছে হুয়াওয়ে। মাত্র ৩৫০ টাকায় ৪ গিগাবাইট ইন্টারনেট প্যাকেজ সুবিধাসহ ১২ মাসের ইএমআই বা কিস্তিতে হুয়াওয়ে জিআর ৫কিনতে পারবেন গ্রামীণফোনের স্টার গ্রাহকরা।