মোবাইল ফোনে নেটওয়ার্ক থাকবে না আজ রাত ১২টার পর !!


রাজধানীতে  সব ধরনের টেলিযোগাযোগ সেবা সাময়িক বিচ্ছিন্নের মহড়া দেয়া হবে সোমবার রাত ১২টার পর । ঢাকার যে কোনো তিনটি এলাকায় এই মহড়া দেয়া হতে পারে।

তবে হাসপাতাল, ফায়ারসার্ভিসসহ অত্যন্ত জনগুরুত্বপূর্ণ স্থাপনা রয়েছে এমন এলাকায় এই মহড়া চলানো হবে না।  ২০ থেকে ৩০ মিনিটের জন্য এ মহড়া দেওয়া হবে। মহড়ার এলাকাগুলোর মধ্যে একটি এলাকা রমনার মধ্যে হতে পারে। তবে বিষয়টি নিশ্চিত হওয়া যায়নি।

প্রথমে এই মহড়া বিকাল সাড়ে পাঁচটা থেকে রাত দুইটার মধ্যে করার কথা থাকলেও পরবর্তীতে তা রাত ১২টার পরে করার সিদ্ধান্ত নেয় বিটিআরসি। মহড়ার সময় নির্দিষ্ট ওই এলাকায় মোবাইল ফোন কাজ করবে না। সব ধরনের ইন্টারনেট সংযোগ বা ল্যান্ডফোনও সে সময়ে অকার্যকর থাকবে।

ইতোমধ্যে সব অপারেটরকে মৌখিকভাবে নির্দেশনাও দেওয়া হয়েছে বলে জানিয়েছেন ইন্টারনেট সার্ভিস প্রোভাইডার অ্যাসোসিয়েশনের শীর্ষস্থানীয় এক কর্মকর্তা।
ওই কর্মকর্তা বলেন, সাম্প্রতিক জঙ্গি হামলার প্র্রেক্ষিতে ওই সময়ে টেলিযোগাযোগকে কিভাবে কাজে লাগানো যায় তার অংশ হিসেবে এই মহড়া হবে বলে তাদেরকে জানানো হয়েছে।তারা এটিকে ‘ইন্টারনেট ব্লাকআউট ড্রিল’ হিসেবে বিবেচনা করছেন।

এ মহড়ার বিষয়ে বিটিআরসির চেয়ারম্যান শাহজাহান মাহমুদ গণমাধ্যমকে বলেন, মোবাইল ইন্টারনেট থেকে শুরু করে তারযুক্ত ইন্টারনেটসহ (ফিক্সড ব্রডব্র্যান্ড) সব ধরনের ইন্টারনেট সেবা এই মহড়ার অন্তর্ভুক্ত হবে। কোন এলাকায় হবে তা আগে থেকে জানানো সম্ভব হচ্ছে না, বৃহত্তর স্বার্থে ক্ষুদ্র কিছু সমস্যা তো মেনে নিতেই হবে।

হলি আর্টিসান রেস্তোরায় ১ জুলাই জঙ্গী হামলার সময় গুলশানে ফোন ও ইন্টারনেট সংযোগ বন্ধ করতে বেশ বেগ পোহাতে হয়। সেদিন পুরোপুরি সংযোগও বন্ধ করা সম্ভব হয়নি বলে গণমাধ্যমের খবরে প্রকাশ।