ভুয়া খবরের সাইটগুলোর বিজ্ঞাপন বন্ধ!


খবরের সাইটে আসল সত্যকে আড়াল করে ভুয়া তথ্য দিয়ে পাঠক টানা যাবে না। ইন্টারনেটের দুনিয়ায় পাঠকের সঙ্গে প্রতারণা করা হয়, এ ধরনের অনেক ভুয়া সাইট এখন চোখে পড়ে। এ ধরনের সাইটগুলোর মালিক বা প্রকাশকদের জন্য দুঃসংবাদ। ভুয়া খবরের সাইটগুলোর বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে যাচ্ছে গুগল


গুগলের প্যারেন্ট কোম্পানি অ্যালফাবেট সম্প্রতি ঘোষণা দিয়েছে, ভুয়া খবরের সাইট হলে গুগলের বিজ্ঞাপন বিক্রির সফটওয়্যার অ্যাডসেন্স ব্যবহার করতে দেওয়া হবে না। গুগলের অ্যাডসেন্স ব্যবহার করে এ ধরনের সাইটগুলোর মালিকেরা অর্থ উপায় করেন।

ওয়াল স্ট্রিট জার্নালের এক প্রতিবেদনে জানানো হয়, গুগল তাদের নীতিমালা হালনাগাদ করছে, যাতে ভুয়া খবর পরিবেশন করে—এমন সাইটগুলোতে অ্যাডসেন্স ব্যবহার করে বিজ্ঞাপন প্রদর্শন করা যাবে না। অ্যাডসেন্স বন্ধ করলে হয়তো ওই সাইটগুলো থেকে ভুয়া খবর প্রকাশ হওয়া ঠেকানো যাবে না, কিন্তু ওই সাইট থেকে অর্থ আয়ের সুযোগ বন্ধ হওয়ায় তা স্বয়ংক্রিয় বন্ধ হয়ে যাবে।

যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে ফেসবুকের মতো সামাজিক যোগাযোগের ওয়েবসাইটের ভুয়া খবর ছড়িয়ে পড়ার বিষয়টি প্রভাব ফেলেছে বলে সমালোচনার মুখে পড়েছে ফেসবুক। অবশ্য ফেসবুকের প্রধান নির্বাহী এ অভিযোগ অস্বীকার করে বলেছেন, ‘এটা পাগলের ধারণা’। তবে বাজফিড নামের এক সংবাদমাধ্যমের প্রতিবেদনে দাবি করা হয়েছে, ভুয়া খবরের প্রচারে মার্কিন নির্বাচন কতটা প্রভাবিত হয়েছে, এ বিষয়ে অভ্যন্তরীণ তদন্ত করছে ফেসবুক।