মৃৎশিল্পকে বাঁচাতে পহেলা বৈশাখকে কেন্দ্র করে ঢাকা বাজারের বিশেষ উদ্যোগ !


’মৃৎ’ মানে মাটি আর ’শিল্প’ মানে সুন্দর সৃষ্টিশীল বস্তু। তাই মাটি দিয়ে নিজহাতে তৈরি শিল্পকর্মকে ‘মৃৎশিল্প’ বলে। কুমোররা অসম্ভব শৈল্পিক দক্ষতা ও মনের মধ্যে লুকায়িত মাধুর্য দিয়ে চোখ ধাঁধানো সব কাজ করে থাকেন। এই শিল্পটি হল বাংলাদেশের সবচেয়ে প্রাচীন ও অন্যতম একটি শিল্প। মাটির তৈরি শিল্পকর্মকে আমরা বলি মৃৎশিল্প। কারণ, এ শিল্পের প্রধান উপকরণ হলো মাটি। কালের আবর্তে ক্রমেই হারিয়ে যাচ্ছে দেশের ঐতিহ্যবাহী শিল্পগুলো। মৃৎশিল্প তাদের একটি। বহুমুখী সমস্যা আর পৃষ্ঠপোষকতার অভাবে আজ সংকটের মুখে এ শিল্প।

এ শিল্পের সব মহলেই কদর ছিল। স্থানীয়ভাবে উৎপাদিত এ শিল্পের মালামাল স্থানীয় চাহিদা মিটিয়ে দেশের বিভিন্ন প্রান্তেও সরবরাহ করা হতো। সূর্য উঠার সঙ্গে সঙ্গে কুমাররা মাটি দিয়ে তৈরি পাতিলের বোঝাই ভার নিয়ে দলে দলে ছুটে চলত প্রতিটি গ্রাম ও মহল্লায়।  পাতিল, গামলা, কূপি বাতি, থালা, জাতা, দুধের পাত্র, ভাঁপাপিঠা তৈরির কাজে ব্যবহৃত খাঁজ, গরুর খাবার পাত্র, কুলকি, ধান-চাল রাখার বড় পাত্র, কড়াই, কূয়ার পাট, মাটির ব্যাংক, শিশুদের জন্য রকমারি নকশার পুতুল, খেলনা ও মাটির তৈরি পশুপাখি নিয়ে বাড়ি থেকে বের হয়ে যেত এবং পণ্যের বিনিময়ে ধান সংগ্রহ করে সন্ধ্যায় ধান বোঝাই ভার নিয়ে ফিরে আসত বাড়িতে। 

স্বাধীনতার প্রায় ৪৫ বছরে দেশের অনেক কিছুর পরিবর্তন হলেও পরিবর্তন হয়নি মৃৎশিল্পের। প্রয়োজনীয় অর্থের অভাবে মানিকগঞ্জের দৌলতপুর উপজেলায় কুমার পরিবারগুলোর নেই কোনো আধুনিক মেশিন ও সরঞ্জাম। এ শিল্পের সঙ্গে জড়িত অনেকেই বাপ-দাদার এ পেশা ছেড়ে অন্য পেশায় জড়িয়ে পড়ছেন। যদিও দেশে এবং দেশের বাইরে আমাদের মৃৎশিল্পের চাহিদা ব্যাপক । এসব পণ্য আমেরিকা, লন্ডন, সৌদি আরব, সিঙ্গাপুর, মালয়েশিয়া, কানাডা, জাপান, হল্যান্ড, ইতালিসহ বিশ্বের প্রায় ১৫/২০ টি দেশে অনেক চাহিদা রয়েছে, এবং রয়েছে রপ্তানির সুযোগ । 

এই পহেলা বৈশাখকে কেন্দ্র করে বাংলাদেশের ঐতিহ্যবাহী মৃৎ শিল্প প্রায় ধ্বংসের  হাত থেকে উদ্ধারের এগিয়ে এসেছে ঢাকা বাজার নামের একটি প্রতিষ্ঠান । পহেলা বৈশাখকে কেন্দ্র করে বাংলাদেশি মৃৎ শিল্পিদের তৈরি বিভিন্ন তৈজসপত্র বিক্রি করছে তারা এবং এবারের পহেলা বৈশাখ কে ঘিড়ে তাদের এই ভিন্ন আয়োজনে তারা শুধুমাত্র দেশি শিল্প প্রমট করছে । তাদের কাছ থেকে ক্রয় করা প্রতিটি মৃৎ পন্যের ৭০ ভাগ তারা পৌঁছে দিবে সে সকল মৃৎশিল্পীর কাছে, যারা দেশ, মাটি ও ঐতিহ্য'কে বাঁচিয়ে রাখতে পরিশ্রম করে যাচ্ছেন প্রতিটি মুহুর্তে। 
ঢাকা বাজারের ফেসবুক ফ্যান পেইজ ভিজিট করতে এখানে ক্লিক করুন । অথবা ফোন করুনঃ ০১৯১১৭৭২৩৯৮/ ০১৬১১৭৭২৩৯৮ নাম্বারে । 

চলুন প্রিয়জনকে পহেলা বৈশাখ উপলক্ষ্যে মৃৎশিল্প উপহার দেই এবং পহেলা বৈশাখ এর আনন্দটি ভাগ করে নেই মা আর মাটির সাথে। আমাদের সংরক্ষণ আর একটু আকর্ষণ হয়ত প্রাণ ফিরে পেতে পারে মৃৎশিল্প, যেন হারাতে না হয় এই ঐতিহ্যকে।