ভিজলেও নষ্ট হয় না যে ফোন

 


বৃষ্টির সময় অনেকেই মোবাইল ফোন ভিজে নষ্ট হওয়ার ভয়ে থাকেন। মোবাইল ফোনসহ অনেকেই গোসল করতে যেতে পারেন না। কারণ, অধিকাংশ মোবাইল পানিরোধী নয়। পানি ঠেকলেই ফোন নষ্ট হয়ে যেতে পারে। কিন্তু এখন এমন স্মার্টফোন বাজারে আসছে, যা পানির নিচে ছবি তোলার, ফোনসহ গোসল বা বৃষ্টিতে ভিজতে ভিজতে ছবি তোলার সুযোগ করে দেয়। দক্ষিণ কোরিয়ার প্রতিষ্ঠান স্যামসাং কর্তৃপক্ষ গত ২৯ মার্চ নিউইয়র্কের এক অনুষ্ঠানে যখন পানিরোধী ফোন হিসেবে গ্যালাক্সি এস৮ ও এস৮ প্লাসের ঘোষণা দেয়, তখন কেউ অবাক হয়নি।

আইপি ৬৮ রেটিং কি?
আইপি (ইনগ্রেস প্রটেকশন) রেটিং হচ্ছে একটি আন্তর্জাতিক মানদণ্ড, যা প্রবেশ বা ভেদ সুরক্ষার মান বোঝায়। কোনো ডিভাইসের আইপি ৬৮-এর অর্থ হচ্ছে তা দেড় মিটার পানির নিচে সুরক্ষিত। এ ছাড়া আলাদা কোনো ক্যাপ বা ঢাকনা ছাড়া ধুলা, ময়লা ও বালুরোধী।

আইপি ৬৮ স্ট্যান্ডার্ড বা মানের ফোনগুলো সাধারণত পানি ও ধুলারোধী হয়। এস৮-এর ক্ষেত্রে আইপি ৬৮ কোনো চমক নয়। কারণ, এস৮-এর আগের সংস্করণ এস৭ সিরিজের ক্ষেত্রেও ছিটানো পানি রোধ করার (স্প্ল্যাশ ফ্রেন্ডলি) সুবিধা এনেছিল স্যামসাং। অবশ্য শুধু স্যামসাং নয়, তার প্রতিদ্বন্দ্বী অনেক প্রতিষ্ঠানের পানি প্রতিরোধী স্মার্টফোন রয়েছে। এর মধ্যে আছে এলজির জি৬, অ্যাপলের আইফোন ৭এস ও সনির এক্সপেরিয়া ফোন।

কেন সবাই পানিরোধী ফোনের দিকে ঝুঁকছেন? বিশেষজ্ঞরা বলছেন, পানিরোধী ফিচারটি শিগগিরই এ শিল্পের মান হিসেবে দাঁড়িয়ে যাবে। এর আগে অনেক ফোনে শুধু পানিরোধী কোটিং ও সিল দেওয়া হতো। এখন একটি ফোনের চেয়ে আরেকটি ফোন কতখানি সুরক্ষিত, এ বিষয় বিবেচনা করে ফিচারটি চলে আসছে।

গ্যালাক্সি এস৮ ও এস৮ প্লাস

নতুন স্মার্টফোনে পানিরোধী ফিচারটিকে আরও উন্নত করেছে স্যামসাং। তাদের দাবি, এস৮ ও এস৮ প্লাস ফোনটি নিয়ে নিশ্চিন্তেই বৃষ্টিতে ভেজা যায়। এমনকি সেলফি তোলা ও পোস্ট করা যায়। চাইলে ফোনটি নিয়ে পুলে গোসলেও নামা যাবে। দেড় মিটার পানির নিচে আধা ঘণ্টা পর্যন্ত রাখা যায় গ্যালাক্সি এস৮ ও এস৮ প্লাস। নতুন এ স্মার্টফোনে পানিরোধী ফিচার ছাড়াও ডিজিটাল সহকারী সফটওয়্যার বিক্সবি, এক্সিনোস বা স্ন্যাপড্রাগন ৮৩৫ চিপসেট, ফেসিয়াল আনলক ফিচার আছে।



এলজি জি৬
৫ দশমিক ৭ ইঞ্চি কিউএইচডি প্লাস ডিসপ্লের ফোনটির রেজল্যুশন আইফোন ৭ আর গ্যালাক্সি এস৭-কেও হার মানায়। ৩ হাজার ৩০০ এমএএইচ ব্যাটারিসংবলিত এলজি জি ৬ ফোনটিতে রয়েছে দুটি ১৩ মেগাপিক্সেল ক্যামেরা এবং ওয়াইড অ্যাঙ্গেল সেলফি ক্যামেরা। অ্যান্ড্রয়েড নোগাট অপারেটিং সিস্টেমচালিত ফোনটিতে রয়েছে কোয়ালকম নির্মিত শক্তিশালী ৪২১ প্রসেসর। এতে রয়েছে উচ্চ গতিসম্পন্ন ওয়্যারলেস চার্জিং ও ইউএসবি সি পোর্ট। ফোনটির পানিরোধী ফিচার একে ফ্ল্যাগশিপ স্মার্টফোন হিসেবে শীর্ষে তুলে এনেছে। আইপি ৬৮ রেটিং থাকায় এলজির ফোনটি নিয়ে নিশ্চিন্তে বৃষ্টিতে ভেজা যায়।
 


আইফোন ৭ ও ৭ প্লাস
গত বছর অ্যাপল যখন আইফোন ৭ ও ৭ প্লাস বাজারে ছাড়ে, তখন এতে বড় চমক ছিল ওয়াটার প্রুফ (পানি নিরোধ) ব্যবস্থা। আইপি ৬৭ রেটিংয়ের ফোনটি এক মিটার পানির নিচেও সুরক্ষিত থাকে। নতুন আইফোনে হেডফোন জ্যাককে বিদায় দেয় অ্যাপল। এ ছাড়া যুক্ত হয় ডুয়াল ক্যামেরা।

সনি এক্সপেরিয়া এক্সজেড
ধাতব কাঠামোর সনি এক্সপেরিয়া এক্সজেড মডেলটি পানিরোধী ফোন হিসেবেও পরিচিত। ফোনটিতে রয়েছে ১ হাজার ৮০ পিক্সেলের ৫.২ ইঞ্চির এলসিডি ডিসপ্লে। ৩ গিগাবাইট র‍্যাম নিয়ে ৩২ ও ৬৪ গিগাবাইট মেমরির আলাদা সংস্করণে রয়েছে স্ন্যাপড্রাগন ৮২০ সিপিইউ। সব এক্সপেরিয়া জেড মডেলের মতো এই ডিভাইসেও আইপি৬৮ ইমারশন প্রোটেকশন রয়েছে। এ ছাড়া আকর্ষণীয় ফিচারের মধ্যে রয়েছে ফোরকে ভিডিও ধারণ করতে সক্ষম ২৩ মেগাপিক্সেলের ক্যামেরা। এ ছাড়া ভালো মানের সেলফি তোলার জন্য সামনে ১৩ মেগাপিক্সেলের ক্যামেরা রয়েছে। এর পাওয়ার বাটনের সঙ্গেই রয়েছে ফিঙ্গারপ্রিন্ট স্ক্যানার।



মটোরোলা জি৪ ও জি৪ প্লাস
মটোরোলার সাশ্রয়ী দুটি সিরিজের মডেলে পানিরোধী ফিচার রয়েছে। যদিও ধাতব কাঠামোর মটো জি৫ মডেলের ফোনটি থেকে পুরোপুরি পানিরোধী তকমা সরিয়ে নিয়েছে মটোরোলার মালিক লেনোভো কিন্তু আগের জি৪ ও জি৪ প্লাসের ক্ষেত্রে পানিরোধী ফিচার রয়েছে। মটো জি৪ হ্যান্ডসেটে ৫.৫ ইঞ্চির ফুল এইচডি ডিসপ্লে, কোয়ালকম স্ন্যাপড্রাগন প্রসেসর ৬১৭, ৫ মেগাপিক্সেলের ফ্রন্ট ক্যামেরা, ১৩ মেগাপিক্সেলের রেয়ার ক্যামেরা রয়েছে। ফোনটিতে ব্যবহার করা হয়েছে তিন হাজার মিলিঅ্যাম্পায়ার ব্যাটারি। ২ গিগাবাইট র‌্যামের এই ফোনে ১৬ গিগাবাইট ইন্টারনাল মেমোরি রয়েছে। জি৪ প্লাসে ৩ গিগাবাইট র‌্যাম, ৩২ গিগাবাইট ইন্টারন্যাশনাল স্টোরেজ সুবিধার পাশাপাশি ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সর ও পেছনে ১৬ মেগাপিক্সেলের ক্যামেরা ব্যবহার করা হয়েছে।


গ্যালাক্সি এস৭ অ্যাকটিভ
স্যামসাং দাবি করে তাদের গ্যালাক্সি এস৭ অ্যাকটিভ ফোনটি পানিরোধী। গ্যালাক্সি এস সেভেন ‘অ্যাকটিভ আইপি ৬৮’ সত্যায়িত। তবে শুরুর দিকে স্মার্টফোনটি পানিতে নিমজ্জন পরীক্ষায় ব্যর্থ হয়। স্যামসাং পরে সে ত্রুটি ঠিক করার কথা জানায়। তথ্যসূত্র: সিনেট।

বৃষ্টির সময় অনেকেই মোবাইল ফোন ভিজে নষ্ট হওয়ার ভয়ে থাকেন। মোবাইল ফোনসহ অনেকেই গোসল করতে যেতে পারেন না। কারণ, অধিকাংশ মোবাইল পানিরোধী নয়। পানি ঠেকলেই ফোন নষ্ট হয়ে যেতে পারে। কিন্তু এখন এমন স্মার্টফোন বাজারে আসছে, যা পানির নিচে ছবি তোলার, ফোনসহ গোসল বা বৃষ্টিতে ভিজতে ভিজতে ছবি তোলার সুযোগ করে দেয়। দক্ষিণ কোরিয়ার প্রতিষ্ঠান স্যামসাং কর্তৃপক্ষ গত ২৯ মার্চ নিউইয়র্কের এক অনুষ্ঠানে যখন পানিরোধী ফোন হিসেবে গ্যালাক্সি এস৮ ও এস৮ প্লাসের ঘোষণা দেয়, তখন কেউ অবাক হয়নি।