বছরে ৪ বার চার্জেই চলবে ফোন!

ফোনের চেয়েও পাতলা চার্জার 


মোবাইল ফোনের ব্যাটারিতে এমন উপকরণ যুক্ত করা হচ্ছে যা চার্জ অনেকদিন ধরে রাখবে। সেক্ষেত্রে বছরে মাত্র ৪ বার ফোনে চার্জ দিয়ে পুরো বছর পার করে দেওয়া যাবে।


মিশিগান এবং করনেল বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষকরা সম্প্রতি ‘ম্যাগনেটোইলেক্ট্রিক মাল্টিফেরোইক’ নামের নতুন উপকরণ আবিষ্কার করেছেন যা ব্যাটারিকে অধিক শক্তিশালী করবে। উপকরণটি একটি পাতলা পোলার ফিল্ম যা সরু এনার্জি পালসের মাধ্যমে পজিটিভ এবং নেগেটিভের মধ্যে সংযোগ সৃষ্টি করবে। নতুন এ উপকরণটি কম্পিউটারকে শক্তির উত্থান পরিচালনার সুযোগ সৃষ্টি করে দিবে। এখন অবশ্য শক্তির ধ্রুব প্রবাহ বিদ্যমান। ব্যাটারিতে এ ধরণের প্রক্রিয়া পরিবর্তন করে ফেলবে ‘ম্যাগনেটোইলেক্ট্রিক মাল্টিফেরোইক’।

 নতুন এ উপকরণ যুক্ত হলে ব্যাটারি এখনকার অবস্থা থেকে ১০০ শতাংশ বেশি শক্তি সাশ্রয়ী হবে। আর তা হলে বার বার স্মার্টফোন চার্জ দেওয়ার ঝক্কি থেকে বাঁচবে পুরো বিশ্ব। পরিবেশের ক্ষতি কম হবে এবং বিদ্যুৎ সাশ্রয় হবে। মোবাইলফোনও ১০০ শতাংশ কম শক্তিতে চলবে। গ্রাহকদেরও বাসার বাইরে এসে অযথা পোর্টেবল চার্জার বহন করা লাগবে না।

তবে খুব শিগগির হাতে পাওয়া যাচ্ছে না অত্যাশ্চরর্য্য এই উদ্ভাবনটি। ম্যাগনেটোইলেক্ট্রিক মাল্টিফেরোইকযুক্ত ব্যাটারি ২০৩০ বাজারে আসবে বলে জানিয়েছেন মার্কিন গবেষকরা।

মোবাইল ফোনের ব্যাটারিতে এমন উপকরণ যুক্ত করা হচ্ছে যা চার্জ অনেকদিন ধরে রাখবে। সেক্ষেত্রে বছরে মাত্র ৪ বার ফোনে চার্জ দিয়ে পুরো বছর পার করে দেওয়া যাবে।