১০ আইডি বন্ধে ফেসবুক কর্তৃপক্ষকে পুলিশের চিঠি

 

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে রোহিঙ্গা সংকটকে কেন্দ্র করে উগ্রপন্থি ও সাম্প্রদায়িক উস্কানিমূলক লেখা যেসব আইডি থেকে পোস্ট করা হয়, এমন ১০টি আইডি ও তিনটি পেজ  শনাক্ত করে তা বন্ধের অনুরোধ জানিয়ে ফেসবুক কর্তৃপক্ষকে চিঠি দিয়েছে পুলিশ।


ইতিমধ্যে তিনটি আইডি বন্ধ করে পুলিশকে অবহিত করেছে ফেসবুক। বাকি সাতটি আইডি বন্ধ করার বিষয়টি প্রক্রিয়াধীন অবস্থায় রয়েছে। এছাড়া আরও ১২টি আইডি নতুনভাবে শনাক্ত করা হয়েছে, যেখান থেকে ধারাবাহিকভাবে রোহিঙ্গা ইস্যু নিয়ে উগ্রপন্থি লেখা পোস্ট করে হয়।

এদিকে ওই সব পোস্ট দেশ-বিদেশে প্রচারে রোহিঙ্গা জনগোষ্ঠী ও বাংলাদেশ ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছে বলে সংশ্লিষ্ট একাধিক দায়িত্বশীল সূত্র জানিয়েছেন।

পুলিশ জানিয়েছেন, এসব আইডি থেকে উগ্রপন্থার বিষবাষ্প ছড়ানোর অপচেষ্টা চালানো হচ্ছে। সহিংসতার এমন ছবি সেখানে পোস্ট করা হয়েছে, যা আদৌ মিয়ানমারের নয়। যেসব আইডি থেকে পোস্ট দেওয়া হয় তার অধিকাংশ 'ফেইক'।

এছাড়া মিয়ানমারে সংঘটিত সহিংসতার প্রকৃত চিত্রের বদলে ওই আইডিগুলো থেকে অনেক ভুল বার্তা দেওয়া হয়। কোনো কোনো আইডি থেকে 'জিহাদে'র আহবান জানানো হয়েছে। তবে যারা এসব ফেইক আইডি খুলেছেন, তাদের শনাক্ত করা হবে।

এ বিষয়ে ঢাকা মহানগর পুলিশের সাইবার ক্রাইম ইউনিটের ডিসি আলিমুজ্জামান জানান, রোহিঙ্গা সংকটকে পুঁজি করে কেউ যাতে দেশে কোনো অস্থিতিশীল পরিবেশ তৈরি করতে না পারে, সে ব্যাপারে পুলিশ সতর্ক রয়েছে। এরই মধ্যে ১০টি আইডি বন্ধে ফেসবুক কর্তৃপক্ষকে চিঠি দেওয়া হয়েছে। আরও কয়েকটি আইডি নজরদারিতে রয়েছে।

এর আগে রোহিঙ্গাদের অধিকার আদায়ে গঠিত সশস্ত্র সংগঠন ‘আরাকান রোহিঙ্গা স্যালভেশন আর্মিকে (আরসা)’ বিপজ্জনক আখ্যা দিয়ে তাদেরকে নিষিদ্ধ করেছে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুক। একই সাথে বিদ্রোহীদের ‘প্রশংসাসূচক’ সকল বিষয়বস্তু মুছে ফেলতেও উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে।

প্রসঙ্গত, জাতিসংঘ বলছে, মিয়ানমারের সেনাবাহিনী রাখাইনে যে ‘গণহত্যা’ চালাচ্ছে, তা ‘জাতিগত নিধনের ধ্রুপদি উদাহারণ’। দেশটির সেনাবাহিনীরও একটি ভেরিফায়েড ফেসবুক পেজ আছে, যার ফলোয়ার ২৬ লাখ

এছাড়া মিয়ানমার সরকারের আরও অনেক ফেসবুক পেজ রয়েছে যেখানে দেশটির রাষ্ট্রীয় পরামর্শক অং সান সু চি এবং অন্যান্য উচ্চপদস্থ সরকারি কর্মকর্তারা রোহিঙ্গা বিরোধী ঘৃণা উস্কে নিয়মিত পোস্ট দিচ্ছে। 

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে রোহিঙ্গা সংকটকে কেন্দ্র করে উগ্রপন্থি ও সাম্প্রদায়িক উস্কানিমূলক লেখা যেসব আইডি থেকে পোস্ট করা হয়, এমন ১০টি আইডি ও তিনটি পেজ শনাক্ত করে তা বন্ধের অনুরোধ জানিয়ে ফেসবুক কর্তৃপক্ষকে চিঠি দিয়েছে পুলিশ।