নিজেকে সুন্দর করে তুলতে শসার ৩ ব্যবহার

নিজেকে সুন্দর করে তুলতে শসার ৩ ব্যবহার 

 শসা ফলটি সালাদে দারুণভাবে সমাদৃত। কাঁচা খেতে ভালো লাগলেও একটু পাকা শসা অনেক অঞ্চলেই রেঁধে খাওয়া হয় সবজির মতন। মাছ বা মুরগির সাথে রাঁধলেও বেশ লাগে। এখন যদি বলি, এই শসাকেই দারুণভাবে ব্যবহার করা সম্ভব আপনার রোজকার রূপচর্চায়?


হ্যাঁ, হরেক গুণের এই শসা কোনো রকম বাড়তি পরিশ্রম ছাড়াই আপনার সৌন্দর্য রুটিনে একটি গুরুত্বপূর্ণ জায়গা পেতে পারে।

আপনি নারী হোন আর পুরুষ হোন, নিজেকে সুন্দর ও আকর্ষণীয় রাখতে শসার তিনটি দারুণ ব্যবহার জেনে নিন আজ। নারী-পুরুষ উভয়ের জন্যই কাজে আসবে এই টিপসগুলো। ওজন কমানো থেকে শুরু করে ব্রণ দূর করা ও ত্বক সুন্দর রাখা, সবই থাকছে থাকছে আজকের লিখায়। পড়ুন :

ওজন কমানোর জন্য
শসা এমন একটি খাদ্য যা ওজন কমানোর জন্য অনেক বেশি উপকারী। কঠোর ডায়েট করতে হবে না, কেবল নিজের খাদ্যতালিকায় যোগ করুন শসা। তিনবেলা খাবারের সাথে বড় এক কাপ শসার সালাদ খাওয়া অভ্যাস করে নিন। এতে খাবার তো অনেক কম গ্রহণ করা হবেই, অন্যদিকে খাবার দ্রুত হজম হয়ে যাবে। শসা আমাদের মেটাবলিজম বাড়ানোর পাশাপাশি কোষ্ঠকাঠিন্যের সমস্যাও দূর করে। তবে হ্যাঁ, শসায় এসিডিটির সমস্যা হয়ে থাকলে চিকিৎসকের পরামর্শ গ্রহণ করুন।

ব্রণের সমস্যা দূর করতে
ব্রণের সমস্যা দূর করতে শসাকে ব্যবহার করুন মাস্ক হিসেবে। সমপরিমাণ শসার রস, নিম পাতার রস ও মধু মিশিয়ে নিন। এটা মুখে মেখে অপেক্ষা করুন শুকিয়ে যাওয়া পর্যন্ত। এরপর পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। একদিন পর পর ব্যবহার করলে ব্রণ কখনো আপনাকে স্পর্শ করতে পারবে না।

ত্বকের কালো দাগ দূর করে উজ্জ্বল ত্বক পেতে
এ ক্ষেত্রে শসা ব্যবহার করুন খুব সহজ পদ্ধতিতে। মুখ ধুয়ে তাজা শসার রস তুলোর সাহায্যে মুখে লাগিয়ে নিন রাতে ঘুমানোর আগে। শুকিয়ে গেলে সেভাবেই ঘুমিয়ে পড়ুন, সকালে ধুয়ে ফেলবেন। চোখের নিচের কালো দাগ সহ আরও অনেক দাগছোপ মুছে গিয়ে ত্বক হয়ে উঠবে প্রাণবন্ত।

শসা ফলটি সালাদে দারুণভাবে সমাদৃত। কাঁচা খেতে ভালো লাগলেও একটু পাকা শসা অনেক অঞ্চলেই রেঁধে খাওয়া হয় সবজির মতন। মাছ বা মুরগির সাথে রাঁধলেও বেশ লাগে। এখন যদি বলি, এই শসাকেই দারুণভাবে ব্যবহার করা সম্ভব আপনার রোজকার রূপচর্চায়?